মতুয়া সংগীত

ঘর কে গড়িল কোথা

(তাল-ঠুংরী)
ঘর কে গড়িল কোথা রল তালাস করসিল না।
ঘরের মধ্যে কে রয় সেই সমুদয়,
নেহার করে একদিন দেখলিনা।।

১। চৌরশি ক্রোশ ঘরখানি, হাড়ের গাথনি,
সেই ঘরেতে দিয়েছে তায়, চামড়ার ছাউনি।
তার জোড়ায় জোড়ায় কব্জা এটে, গড়েছে ঘর সেই জনা।।

২। জ্ঞানের আলো বসাইল, মাক্তার উপর,
সেই আলো বন্ধ হলে, জগৎ অন্ধকার।
আলো বন্ধ হয় ঐ কু-বাতাসে, সে বিনে আর বন্ধ হয় না।

৩। ঘরের মধ্যে আট কোঠরা, নয় দরজা হয়,
নয় জন দ্বারী নয় দরজায়, দাঁড়াইয়ে রয়।
তার আঠার মোকামের পাশে, আরও আছে আঠার জনা।।

৪। ঘরের মধ্যে কাল কামিনী, রয় নামটি ধরে
নিন্দ্রাযোগে সে সর্ব্বধন, নিয়ে যায় হরে।
ঘরে আরও আছে পঞ্চজনা, ঘরের মালিক আছে একজনা।

৫। হরি গোসাই বলে যদি, ধরবি মালিক জন,
অনায়াসে শান্তিপুরে, করিবি গমন।
তোর ঘরের মালিক নয় বহুদুর দীনবন্ধু করগে সাধনা।।

…………………………….
তত্ত্ব গীতি
রাগিনী-দেবগিরী

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!