ভবঘুরেকথা
মহর্ষি মনোমোহন দত্ত দয়াময়

(রাগিনী খাম্বাজ-তাল একতালা)

তাঁরে ডাকতে জানলে দিত দেখা, কইত কথা আমার সনে।
সে যে ডাক শুনেনা, কয়না কথা, বুঝলাম আমি ডাক জানিনে।।

ডাকার মত ডাকছে যারা, হয়না কভু তাঁরে হারা
সে তারে দিয়েছে ধরা, যে ডে’কেছে আকুল প্রাণে।।

শিশু যেমন মাকে ডাকে, জানেনা আর অন্য কাকে
সুখে দু:খে মা, মা, মা, মা, দেখেনা আর মা বিনে।।

জলদে ডাকে চাতকে, ঝড় তুফান করকে
প্রাণ গেলেও যাকে তাকে, ডাকেনা সে, সে বিনে।।

বৃন্দাবনে ব্রজগোপী, রয়েছে যে ভাবে ডুবি
সে ভাবে স্বভাব নিবি, বলে যত মহাজনে।।

সে ভাবে স্বভাব নিতে, হলনা আর আমা হ’তে
কামিনী কাঞ্জনে পথে, গোল বাজাইল হেছকা টানে।।

ডাকার মত ডাকলে পরে, রইতে কি সে পারত দূরে
দেখা দিত সে আমারে, কইতাম্ কথা প্রাণে প্রাণে।।

ডাকার মত ডাক জানিনে, তাই ত তার দেখা পাইনে
শিশুর কাছে ডাক শিখেনে, মনোমোহন কয় ভেবে মনে।।

……………………………
আরো পড়ুন: মহর্ষি মনোমোহন ও মলয়া সঙ্গীত

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

error: Content is protected !!