বিজয় সরকার

তোর ঘরে তোর সবি আছে যাবি কেন পরের ধারে,
তুই সাধনে সন্ধান করে দেখ মূলশক্তি তোর মূলাধারে।।

তোর ঘরে থেকে দেবতা
তোর মুখে জোগালো কথা
শুনিয়া তুই শুনলি না তা পড়েছিস শ্রবণবিকারে;
তোর শব্দ স্পর্শ রূপ রস গন্ধ দ্বন্দ্ব বাধায় অন্ধকারে।।

তুই তো রাখলি না তোর হিসাব
তোর যে কতো বিষয়বৈভব
তবু তোর গেলো না অভাব স্বভাবের এই ব্যাভিচারে;
কতো মণি-কাঞ্চন পড়ে আছে তোর বসত বাড়ির পাছদুয়ারে।।

পাল্টায়ে দাও কর্মের বহর
উল্টায়ে দাও ইন্দ্রিয়ের ঘর
উল্টানাম জপে রত্নাকর বাল্মিকী হয় যে প্রকারে;
সে যে অনাগত কলেরখবর জানতে পাবিনা তারে।।

যোগেতে পারলাম না জাগতে
ছাই সামলিয়ে রাখতে পারলেম না কোনো প্রকারে;
পাগল বিজয় বলে, সকল থাকতে জীবন গেলো অনাহারে।।

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!