ব্রাহ্মসামাজ

ব্রহ্ম মন্দিরের ট্রাস্টডিড

১৮৩০ খ্রিস্টাব্দে ২৩শে জানুয়ারি, ১১ই মাঘ ১২৩৬ বঙ্গাব্দে ব্রহ্ম মন্দিরের প্রতিষ্ঠা উপলক্ষে রাজা রামমোহন রায় ব্রহ্ম মন্দিরের যে ন্যাস পত্র সম্পাদন করেন তার সারমর্ম-

বিশ্বব্রহ্মাণ্ডের স্রষ্টা, পাতা, আদি-অনন্ত, অসীম, অপরিবর্তনীয়, এক অদ্বিতীয় পরমেশ্বরই একমাত্র উপাস্য।

এই মন্দিরের দ্বারা জাতি সম্প্রদায়, গোষ্ঠী, সামাজিক পদমর্যাদা নির্বিশেষে সর্বমানেবের জন্য উন্মুক্ত। যিনিই ভদ্র ও সংযতভাবে এবং সশ্রদ্ধ চিত্তে উপাসনায় যোগদানেচ্ছু হবেন, তিনিই সর্বদা এই মন্দিরের উপাসনানুষ্ঠানে স্বাগত।

যাঁর দ্বারা মানব হৃদয়ের প্রেম, প্রীতি, ভক্তি, দয়া, সাধুতা, সেবা প্রভৃতি বৃত্তি বিকাশ হয় এবং সমস্ত ধর্ম-সম্প্রদায়ের মধ্যে প্রীতি ও ঐক্যের বন্ধন দৃঢ় হয় এখানে তার উপযোগী প্রার্থনা, উপদেশ, বক্তৃতা ও সঙ্গীত অনুষ্ঠিত হবে।

কোন প্রকার সৃষ্ট বস্তু অর্থাৎ ছবি, প্রতিমূর্ত্তি বা খোদিত দেবমূর্ত্তি প্রভৃতি এখানকার উপাসনায় ব্যবাহার করা যাবে না। জগতের স্রষ্টা ও পালনকর্তা এক অদ্বিতীয় পরমেশ্বরের ধ্যান ধারণা ও আরাধনাই এই উপাসনার একমাত্র বিষয়।

যাঁর দ্বারা মানব হৃদয়ের প্রেম, প্রীতি, ভক্তি, দয়া, সাধুতা, সেবা প্রভৃতি বৃত্তি বিকাশ হয় এবং সমস্ত ধর্ম-সম্প্রদায়ের মধ্যে প্রীতি ও ঐক্যের বন্ধন দৃঢ় হয় এখানে তার উপযোগী প্রার্থনা, উপদেশ, বক্তৃতা ও সঙ্গীত অনুষ্ঠিত হবে।

এখানে কোনো ধর্মশাস্ত্র, ধর্মগুরু বা কোনো সম্প্রদায়ের বিশিষ্ট উপাস্য দেবতা বা বস্তুর প্রতি কোন প্রকার অবজ্ঞা, ঘৃণা বা নিন্দা প্রকা< করা নিষিদ্ধ।

…………………………
ব্রাহ্মধর্ম্ম ও ব্রাহ্মসমাজ

……………………………….
ভাববাদ-আধ্যাত্মবাদ-সাধুগুরু নিয়ে লিখুন ভবঘুরেকথা.কম-এ
লেখা পাঠিয়ে দিন- voboghurekotha@gmail.com
……………………………….

………
আরও পড়ুন-
ব্রাহ্মসমাজ
সাধারণ ব্রাহ্মসমাজের সভ্য হইবার যোগ্যতা
ব্রাহ্ম ধর্মের মূল সত্য
ব্রহ্ম মন্দিরের ট্রাস্টডিড
ব্রাহ্মধর্ম্মের মূল সত্য
আত্মা
মানুষের ভ্রাতৃত্ব
উপাসনা ও প্রার্থনা
শাস্ত্র
গুরু
মধ্যবর্ত্তী ও প্রেরিত
সুখ-দু:খ : দু:খবাদ ও আনন্দবাদ
পাপ ও পুণ্য
পুনর্জ্জন্ম
পরকাল
স্বর্গ ও নরক
ধর্ম্ম রক্ষা
পরিবারে পুরুষ ও নারীর অধিকার-সাম্য
ব্রাহ্মসমাজের প্রতি ব্রাহ্মদিগের কর্ত্তব্য
সমবেত উপাসনা
পূর্ণাঙ্গ উপাসনার আদর্শ 
স্তুতি
বিবিধ অবস্থায় প্রার্থনা
নৈমিত্তিক অনুষ্ঠান
সন্তান জন্ম
ব্রাহ্মধর্ম্ম গ্রহণ ও ব্রাহ্মসমাজে প্রবেশ
ধর্ম্মসাধন ব্রতে দীক্ষা
ব্রাহ্মধর্ম্ম গ্রহণ ও ধর্ম্মদীক্ষা
বিবাহ ও তাহার আনুসঙ্গিক অনুষ্ঠান
বিবাহের বাগদান
বিবাহ
মৃত্যু ও অন্ত্যেষ্টি ক্রিয়া
শ্রাদ্ধ
গৃহ প্রবেশ
ব্রহ্ম ও ব্রহ্মের স্বরূপ
ব্রহ্ম ধ্যান
ব্রাহ্মধর্ম
সকলেই কি ব্রাহ্ম?
ব্রাহ্মোপসনা প্রচলন ও পদ্ধতি
আদি ব্রাহ্ম সমাজ ও “নব হিন্দু সম্প্রদায়”
পূর্ণাঙ্গ উপাসনার আদর্শ

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

error: Content is protected !!