ভবের ঘাট

পরমহংস যোগানন্দ। কথা

উদ্বেগমুক্ত চেতনা

এটাই হল সঠিক মানসিক অবস্থান। মনে মনে যথাসাধ্য চেষ্টা করে যান- অবশ্যই বিনা উদ্বেগে। উদ্বেগ কেবল চেষ্টাকেই পঙ্গু করতে পারে। নিজে সর্বাত্মক চেষ্টা করলে পর, ভগবান তাঁর সাহায্যের হাত আপনার দিকে বাড়িয়ে দেবেন।

বিস্তারিত পড়ুন
রামকৃষ্ণ পরমহংস দেব কথা

শ্রীরামকৃষ্ণ ভক্তিসূত্র

ভক্তিযোগের সমাধিকে চেতন সমাধি বলে। এতে সেবা সেবকের ‘আমি’ থাকে-রস-রসিকের ‘আমি’ -আস্বাদ্য-আস্বাদকের ‘আমি’। ঈশ্বর সেব্য-ভক্ত সেবক; ঈশ্বর রসস্বরূপ-ভক্ত রসিক; ঈশ্বর আস্বাদ্য-ভক্ত আস্বাদক। চিনি হব না, চিনি খেতে ভালবাসি।

বিস্তারিত পড়ুন
প্রজাপিতা ব্রহ্মা কথা

মৃত্যুর পরে কী ও পূর্বে কী?

সুতরাং ওইরূপ অন্তিম সময়ে তাকে গীতা শুনিয়ে বা তার কানে ওম্ ধ্বনি দিয়ে কিংবা শিব, শ্রীকৃষ্ণ বা শ্রীনারায়ণের চিত্র দেখিয়ে কী লাভ হবে? কারণ ওইরূপ অন্তিমাবস্থায় তার বিকারী সংস্কার পরিবর্তন হওয়া অসম্ভব।

বিস্তারিত পড়ুন
ফকির লালন কথা

মহাত্মা লালন সাঁইজির দোলপূর্ণিমা

কালীগঙ্গার জলে ফাল্গুনের সূর্য প্রতিফলিত। তার তেজে ম্রিয়মাণ বৃহ্ম লতা। সূর্য ফুরসত দিলেই হাওয়ারা জেগে উঠবে। এমনি তিথিতে ছেঁউড়িয়ার কালীগঙ্গার ঘাটে ভিড়লো এক মৃতপ্রায় যুবক। সারা শরীরে তাঁর প্রাণঘাতী বসন্ত। অতি দারিদ্র মলম শাহ্ এবং মতিজান ফকিরানী যেন কিংকর্তব্যবিমূঢ়।

বিস্তারিত পড়ুন
লালন অক্ষ কিংবা দ্রাঘিমা বিচ্ছিন্ন এক নক্ষত্র! কথা

লালন গানের ‘বাজার বেড়েছে গুরুবাদ গুরুত্ব পায়নি’

বাউলদের বদনে যে পোশাকি, পেশাদার লালন গানের নব্য শিল্পীগোষ্ঠী তৈরি হয়েছে, হচ্ছে, কারা মঞ্চে ওঠার আগে গেরুয়া সজ্জিত হয়ে গলায়, বাহুতে, কব্জিতে এবং খোপায় রুদ্রাক্ষরের মালা পড়ে, মাথায় পাগড়ি এটে দৃষ্টিনন্দন সাধুবেশ ধারণ করে। এই সকল লালন গানের শিল্পীরা মঞ্চে নেচে-গেয়ে আসর মাত করছে।

বিস্তারিত পড়ুন
মাই ডিভাইন জার্নি কথা

লালন আখড়ায় মেলা নয় হোক সাধুসঙ্গ

ফকির লালন সাঁই ছেঁউড়িয়ার আখড়াবাড়িতে পালক পিতা-মাতা ও ভক্ত-অনুরাগীদের নিয়ে বাস করতেন। প্রায় দুইশত বছর আগে তিনি তাঁর এই আখড়াবাড়িতে দোল পূর্ণিমায় সাধুসঙ্গের সূচনা করেন।

বিস্তারিত পড়ুন
স্বামী বিবেকানন্দ কথা

রাজযোগ-বিজ্ঞানের লক্ষ্য

যদি তুমি জ্যোতির্বিদ হতে চাও, তাহলে তোমাকে মানমন্দিরে গিয়ে দূরবীক্ষণ-যন্ত্রের সাহায্যে গ্রহ-নক্ষত্র পর্যবেক্ষণ করতে হবে, তবে তুমি জ্যোতির্বিৎ হতে পারবে। প্রত্যেক বিদ্যারই এক একটি নির্দিষ্ট প্রণালী থাকা উচিত।

বিস্তারিত পড়ুন
ঋষি অরবিন্দ কথা

নব চেতনার উন্মেষে নূতন শিক্ষাধারা

বীর যোদ্ধা করে তোল আমাদের, আমরা তাই হতে চাই। অতীত আরো বেঁচে থাকতে চায়, তার বিরুদ্ধে যে ভবিষ্যৎ জন্ম নিতে চলেছে তার মহাযুদ্ধ আমরা যেন সফল করে তুলতে পারি- যাতে নূতন সব জিনিসের প্রকাশ হয়, আমরাও তাদের গ্রহণ করবার জন্য প্রস্তুত থাকি।

বিস্তারিত পড়ুন
শেলী কথা

‘দিব্যজ্ঞানী’ শুধুই গানের দল নয়

লোকেরা তখন তাকে সহজেই দিব্যজ্ঞানী নির্দেশিত করে; আর তার চরণতলে নিজেকে সর্মপন করে। দরদী কণ্ঠে তখন বাউল-সাধক ও মহতের ভাববাণী ভাবুকের দেহমন উতলা করে। তার মুখনিঃসৃত কথামালা হয় অমিয় সুধা আর অজানাকে জানার সূত্র।

বিস্তারিত পড়ুন
মহেন্দ্রনাথ গুপ্ত কথা

এক আনন্দময় ভক্ত ও তাঁর ভগবতী প্রেমযোগী

মাস্টরমহাশয় বললেন, “বাবা! একটু বোসো। আমি জগজ্জননীর সঙ্গে এখন কথা বলছি।” গভীর শ্রদ্ধার সঙ্গে আমি নীরবে ঘরে প্রবেশ করলাম। মাস্টার মহাশয়ের দিব্য আকৃতি আমার চোখকে যেন রীতিমত ঝলসে দিল।

বিস্তারিত পড়ুন
error: Content is protected !!