কবি কাজী নজরুল ইসলাম

কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

প্রণমামি শ্রীদুর্গে নারায়ণি

(প্রস্তাবনা) প্রণমামি শ্রীদুর্গে নারায়ণি গৌরি শিবে সিদ্ধিবিধায়িনি। মহামায়া অম্বিকা আদ্যাশক্তি ধর্ম-অর্থ-কাম-মোক্ষ-প্রদায়িনি॥ শুম্ভনিশুম্ভ-বিমর্দিনি চন্ডি নমো নমঃ দশপ্রহরণধারিণি॥ দেব সৃষ্টি-স্থিতি-প্রলয়-বিধাত্রি জয় মহিষাসুরসংহারিণি॥ যুগে যুগে দনুজদলনী মহাশক্তি যোগনিদ্রা মধুকৈটভনাশিনি বেদ-উদ্ধারিণি মণি-দ্বীপবাসিনি শ্রীরাম অবতারে বরাভয়দায়িনি॥

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

এবার নবীন মন্ত্রে হবে

(পুরুষ ও নারীর গান) এবার নবীন মন্ত্রে হবে জননী তোর উদ্‌বোধন। নিত্যা হয়ে রইবি ঘরে, হবে না তোর বিসর্জন॥ সকল জাতির পুরুষ নারীর প্রাণ সেই হবে তোর পূজা-বেদি মা তোর পীঠস্থান। (সেথা) শক্তি দিয়ে ভক্তি দিয়ে পাতব মা তোর সিংহাসন॥ (সেথা) রইবে নাকো ছোঁয়াছুঁয়ি উচ্চ-নীচের ভেদ, সবাই মিলে উচ্চারিবে মাতৃনামের বেদ। (মোর) এক জননীর সন্তান […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

খড়ের প্রতিমা পূজিস রে তোরা

(জনৈকা ভিখারিনির গান) খড়ের প্রতিমা পূজিস রে তোরা, মাকে তো তোরা পূজিসনে॥ প্রতিমার মাঝে প্রতিমা বিরাজে হায় রে অন্ধ, বুঝিসনে॥ বছর বছর মাতৃপূজার করে যাস অভিনয়, ভীরু সন্তানে হেরি লজ্জায় মা-ও যে পাষাণময়। (মাকে) জিনিতে সাধন-সমরে সাধক তো কেহ যুঝিসনে॥ মাটির প্রতিমা গলে যায় জলে, বিজয়ায় ভেসে যায়, আকাশ বাতাসে মা-র স্নেহ জাগে অতন্দ্র করুণায়। […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

মাটির ছেলে

(ধরার মানুষের গান) (মোরা) মাটির ছেলে, দু-দিন পরে মাটিতে মিশাই। (আসে) খড়ের প্রতিমা হয়ে মা আমাদের তাই॥ (সে) কয় না কথা, দেয় না স্নেহ-কোল, মা, মা বলে যতই কেন বাজা না ঢাক-ঢোল, (তোর) ক্ষুধা-তৃষ্ণার জ্বালা মেটে হয়ে শ্মশান-ছাই॥ (সে) দেবতাদের চিন্ময়ী মা, অসুরও পায় দেখা মা-র অসুরও পায় দেখা– (মা-র) জড় পাষাণ মূর্তি হেরে শুধু […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

মাকে ভাসায়ে ভাটির স্রোতে

মাকে ভাসায়ে ভাটির স্রোতে কেমনে রহিব ঘরে। শূন্য ভবন শূন্য ভুবন কাঁদে হাহাকার করে॥ মা যে নদীর জল-তরঙ্গ প্রায় ভরা কূলে কূলে, তবু ধরা নাহি যায় ; রাখিতে নারিনু পাষাণীরে মোরা পাষাণ দেউল ধরে॥

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

যাসনে মা ফিরে যাসনে জননী

যাসনে মা ফিরে যাসনে জননী ধরি দুটি রাঙা পায়। শরণাগত দীন সন্তানে ফেলি ধরার ধূলায়॥ (মা গো) ধরি দুটি রাঙা পায়॥ (মোরা) অমর নহি মা দেবতাও নহি, শত দুখ সহি ধরণিতে রহি ; মোরা অসহায়, তাই অধিকারী মা গো, তোর করুণায় দিব্য শক্তি দিলি দেবতারে মৃত্যুবিহীন প্রাণ, তবু কেন মা গো তাহাদেরই তরে তোর এত […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

বিজয়োৎসব ফুরাইল মা গো

বিজয়া [বিজয়ার ঢাক-ঢোল বাজিতেছে। নাট-মন্দির হইতে সানাই-এর করুণ সুর (মুলতানি বা পুরবি) ভাসিয়া আসিতেছে।] [ঊর্ধ্ব হইতে দেবদেবীদের সংগীত ভাসিয়া ক্রমেই নিকটে আসিতেছে।] গান [পুরুষ ও স্ত্রী সমবেত কন্ঠে] বিজয়োৎসব ফুরাইল মা গো, ফিরে আয় ফিরে আয়। মা আনন্দিনী গিরিনন্দিনী শিব-লোকে অমরায় ফিরে আয় ফিরে আয়॥ কৈলাসে শিব যাপিতেছে দিন শব-সম, হয়ে শক্তি-বিহীন ; সপ্ত স্বর্গ […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

কী দশা হয়েছে মোদের

(আগমনি) কী দশা হয়েছে মোদের দেখ মা উমা আনন্দিনী। (তোর) বাপ হয়েছে পাষাণ গিরি মা হয়েছে পাগলিনি॥ (মা) এদেশে আর ফুল ফোটে না, গঙ্গাতে আর ঢেউ ওঠে না, (তোর) হাসি মুখ না দেখলে যে মা পোহায় না মোর নিশীথিনী॥ আর যাবি না ছেড়ে মোদের বল মা আমার কন্ঠ ধরি সুর যেন তার না থামে আর […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

আয় মা উমা

(আগমনি) আয় মা উমা, রাখব এবার ছেলের সাজে সাজিয়ে তোরে। (ওমা) মা-র কাছে তুই রইবি নিতুই, যাবি না আর শ্বশুর-ঘরে॥ মা হওয়ার মা কী যে জ্বালা বুঝবি না তুই গিরিবালা, (তোরে) না দেখলে শূন্য এ বুক কী যে হাহাকার করে॥ তোর টানে মা শংকর শিব আসবে নেমে জীব-জগতে, আনন্দেরই হাট বসাব নিরানন্দ ভূ-ভারতে। না দেখে […]

বিস্তারিত পড়ুন
কাজী নজরুল ইসলাম কবি কাজী নজরুল ইসলাম

বিগলিত করুণা

(গঙ্গা-বন্দনা) (জয়) বিগলিত করুণা-রূপিণী গঙ্গে। (জয়) কলুষহারিণী পতিতপাবনী নিত্যাপবিত্রা যোগী-ঋষিসঙ্গে॥ হরি-শ্রীচরণ ছুঁয়ে আপনহারা পরম প্রেমে হলে দ্রবীভূতধারা। ত্রিলোকের ত্রি-তাপ-পাপ তুমি নিলে মা নির্মলে! তোমার পবিত্র অঙ্গে॥

বিস্তারিত পড়ুন
error: Content is protected !!