বাউল ফকির সাধুসঙ্গ

পর বিনে জগতে কে আপন

পর বিনে জগতে কে আপন।
পরের জন্য যার প্রাণ কাঁদে
সেই তো জানে পরের মন।।

যেমন লোহা-কাঠ সংগ্রহ করি’
সমুদ্রেতে ভাসায় তরী,
তার কে হয় কার আপন।
তরী একবার ভাসে, একবার ডোবে,
তবু না ছাড়ে প্রেমের বাঁধন।।

যেমন মেয়েরা যায় পরের বাড়ী,
পরকে লয় আপন করি’,
হয় মহা-মিলন।
তারা একবার হাসে, একবার কাঁদে,
না ছাড়ে প্রেমের বাঁধন।।

ক্ষ্যাপা বলে, পর আপনার করা,
হতে হবে জ্যান্তে মরা,
হয়েছিল চণ্ডীদাস একজন।
তারা এক মরণে দুজন ম’ল,
এমনি তাদের প্রেমের মিলন।।

……………………
অধ্যাপক উপেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্যের ‘বাংলার বাউল ও বাউল গান’ গ্রন্থ থেকে এই পদটি সংগৃহিত। ১৩৬৪ বঙ্গাব্দে প্রথম প্রকাশিত এই গ্রন্থের বানান অপরিবর্তিত রাখা হয়েছে। লেখকের এই অস্বাধারণ সংগ্রহের জন্য তার প্রতি ভবঘুরেকথা.কম-এর অশেষ কৃতজ্ঞতা।

এই পদটি সংগ্রহ সম্পর্কে অধ্যাপক উপেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য মহাশয় লিখেছেন- এই পদটি সংগ্রহ সম্পর্কে অধ্যাপক উপেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য মহাশয় লিখেছেন- কেঁদুলীর মেলায় বাঁকুড়া, মেদিনীপুর, মানভূম, মূর্শিদাবাদ, বীরভূম, বর্ধমান প্রভৃতি জেলা হইতে সমাগত বাউলদের নিকট হইতে বিশেষভাব গৃহীত বাউল গান।

…………………….
আপনার গুরুবাড়ির সাধুসঙ্গ, আখড়া, আশ্রম, দরবার শরীফ, অসাম্প্রদায়িক ওরশের তথ্য প্রদান করে এই দিনপঞ্জিকে আরো সমৃদ্ধ করুন-
voboghurekotha@gmail.com

……………………………….
ভাববাদ-আধ্যাত্মবাদ-সাধুগুরু নিয়ে লিখুন ভবঘুরেকথা.কম-এ
লেখা পাঠিয়ে দিন- voboghurekotha@gmail.com
……………………………….

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

error: Content is protected !!