ঈশ্বরের ব্যাখ্যা ও গুরুচাঁদ ঠাকুর

-জগদীশচন্দ্র রায় উপরের ঘটনার পরের দিন অর্থাৎ ১৯০৮ খ্রিস্টাব্দের ২৬ অক্টোবর, গুরুচাঁদ ঠাকুরের উপস্থিতিতে লক্ষ্মীখালীতে বিভিন্ন জ্ঞানী-গুণীজনদের নিয়ে এক বিরাট…

হরিচাঁদ ঠাকুরের অষ্টোত্তর শতনাম

পূর্ণব্রহ্ম শ্রী শ্রী হরিচাঁদ ঠাকুরের অষ্টোত্তর শতনাম- ১. রামকান্ত রাখে নাম ‘বাসুদেবেশ্বর’। ২. ‘পূর্ণ হরিচাঁদ’ নাম ধরাতে প্রচার। ৩. ‘হরিদাস’…

বুদ্ধিহীন সরলতা ত্যাগ করা

-জগদীশচন্দ্র রায় বুদ্ধিহীন সরলতা আর নাহি চলে হেথাকূট-বুদ্ধি বটে দরকার।।(গুরুচাঁদ চরিত, পৃ-৪৪৩) প্রকৃতপক্ষে ভারতের মূল অধিবাসীগণ হচ্ছে সহজ সরল প্রকৃতির।…

বিধবাবিবাহ প্রচলন ও বর্ণবাদীদের গাত্রদাহ

-জগদীশচন্দ্র রায় গুরুচাঁদ ঠাকুরের নারী শিক্ষা আন্দোলনের অগ্রগতিতে উচ্চবর্ণীয়দের মধ্যে একদিকে যেমন গাত্রদাহ শুরু হয়ে যায় অন্যদিকে সেই আগুনে ঘৃতাহুতি…

মতুয়া মতাদর্শে সামাজিক ক্রিয়া

-জগদীশচন্দ্র রায় কৃষিকার্যে কভু কেহ করিও না হেলা।মদ গাঁজা খেয়ো নারে ছাড় জুয়া খেলা।।(গুরুচাঁদ চরিত পৃ: ৫২৯) তৎকালীন অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে…

নম:শূদ্রদের পূর্ব পরিচয়: এক

-জগদীশচন্দ্র রায় ১৮৮১ সালে বর্তমানে বাংলাদেশের খুলনা জেলার অন্তর্গত দত্তডাঙা গ্রামের ঈশ্বর গাইনের বাড়িতে শ্রদ্ধানুষ্ঠান উপলক্ষে বহু দূরদূরান্ত থেকে যে…

মতুয়া মতাদর্শে শিক্ষা বিস্তার

-জগদীশচন্দ্র রায় গুরুচাঁদ ঠাকুর শিক্ষায় পিছিয়ে পড়াদের মধ্যে শিক্ষা বিস্তারের লক্ষ্যে ও স্বচ্ছতার অভিযান স্বরূপ ১৯২৭ সালে ৮১ বছর বয়সেও…

মতুয়া মতাদর্শে দেহতত্ত্ব

-জগদীশচন্দ্র রায় এই বিষয়ে বিশ্লেষণের পূর্বেই জানিয়ে দিই যে, এই দেহতত্ত্ব কিন্তু বৈদিক ভাবনার নয়। এটা মতুয়া দর্শনের হলেও এটা…

মতুয়াধর্মে জাতিভেদ নেই

-জগদীশচন্দ্র রায় জাতিভেদ প্রথা হচ্ছে বৈদিকবাদী ব্যবস্থার প্রাণ ভোমরা। এই ব্যবস্থা যত সুদৃঢ় হবে বৈদিকবাদীদের শ্রেষ্ঠত্ব ও বিনাশ্রমে অর্থ উপার্জনের…

মতুয়াদের ভগবান কে?

-জগদীশচন্দ্র রায় তোমাদের এই কুলে হরি অবতার।দয়া করে নম:শূদ্রে করিল উদ্ধার।।তাঁর পূজা কর সবে তাঁর ভক্ত হও।নিজ ঘরে ভগবান ফেলে…
error: Content is protected !!