মহাত্মা ফকির লালন সাঁইজি

কার ভাবে শ্যাম নদেয় এলো

কার ভাবে শ্যাম নদেয় এলো।
ও তাঁর ব্রজভাবে কি অসুসার ছিলো।।

গোলকেরই ভাব ত্যাজিয়ে সে ভাব
প্রভু ব্রজপুরে লয়েছিল যে ভাব,
এখন নাহি তো সে ভাব দেখি নতুন ভাব
এভাব বুঝা জীবের কঠিন হলো।।

সত্য যুগে সঙ্গে কয় সখি ছিল
ত্রেতায় সঙ্গী সীতা লক্ষ্মী হলো,
ছিলো দ্বাপরের সঙ্গিনী রাধা রাঙ্গিনী
কলির ভাবে তারা কোথায় বলো।।

কলিযুগের ভাব একি অসম্ভব
নাহি ব্রতপূজা নাহি অন্য লাভ,
ছিলো দণ্ডীবেশ দণ্ড কমণ্ডলু
তাও নিতাই এসে ভেঙ্গে দিলো।।

উহার ভাব জেনে ভাব লওয়া হলো দায়
না জানি কখন কি ভাব উদয়,
করলে তিনটি লীলা একা নদীয়ায়
লালন ভেবে দিশে নাহি পেলো।।

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!