মহর্ষি মনোমোহন দত্ত দয়াময়

(রাগিণী ললিত-তাল আড়াঠেকা)

ধীরে ধীরে আঁখিনীরে, কি জানি কি কথা কয়।
সপ্তস্বরে তিন গ্রামে, অনাহত ধ্বনি হয়।।

আঁখিতে সঙ্গীত গায়, হৃদিযন্ত্র বাজে তায়
হাওয়াতে প্রাণ খেলে বেড়ায়, প্রকৃতি মাধুরীময়।।

উদারাতে প্রেমের ঝঙ্কার, মুদারাতে ধরে বিকার
তারা গ্রামে বাজিলে তার, ত্রিবেণী উজার বয়।।

সপ্তস্বরে বাজে বীণা, সঞ্চারিয়ে তা, না, না, না
সুরতান লয় মূর্চ্ছনা, মূচ্ছ নাতে মূর্চ্ছা হয়।।

তার পরে তার খোলে আঁখি, একবিনে সব দেখে ফাঁকি
উড়েগিয়ে প্রাণপাখি, ব্রহ্মপদে হয় লয়।।

মনোমোহন পায় মহাজনে, ভাগ্যফলে নইলে নয়।।

……………………………
আরো পড়ুন: মহর্ষি মনোমোহন ও মলয়া সঙ্গীত

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!