মতুয়া সংগীত

হিন্দু আর মুসলমান

(তাল-ঠুংরী)
হিন্দু আর মুসলমান, সবে এক পিতার সন্তান
ছেড়ে সবে অভিমান থাক ভুতলে।
পতন হইওনা ভাই হিংসা আনলে।।

১। এবার দেখতেছি দুনিয়ায় আসি,
মারা মারি দ্বেষা দেষি,
কতই যে রাশি রাশি হতেছেরে ভাই।
মুখেতে নাই আল্লা হরি, তাতে প্রাণে কষ্ট ভারি।,
সহ্য না করিবে হরি কোন কালে।।

২। ভবে ভাই ভাই সবাকার বিবাদ কৈরনা আর,
হিংসা হিংসি করে সবে, হওনা পয়মাল।
যেই আল্লা সেই হরি, মিছে কর বাড়াবাড়ি,
আখেরেতে যেয়ে জবাব দিবা কি বলে।।

৩। মনে ভেবে দেখ ভাই গণ, এক মাটিতে গঠন,
এক মাটিতে চলাফেরা, সেই মাটিতে পতন।
কোথা রবে ঘর বাড়ী যেতে হবে এসব ছাড়ি,
আমার আমার দিন দুই চারি, যারা সব ফেলে।।

৪। ভাইরে যাদের আছে যেই ধর্ম্ম সবে কর তার কর্ম্ম,
কেহ কারব ধর্ম্ম নিন্দা কৈরনা।
ধর্ম্ম নিন্দা করলে পর, পাবানা আর কুল কিনার
দুর্গতি ঘটিবে তার, অন্তিম কালে।।

৫। ভাইরে ভেবে দেখ এই ভাবে, জোরামালী করে সবে,
কতদিন আর থাকা যাবে, ভাবেরি মাঝার।
বোকা দ্বীনবন্ধু কর কর্ম্ম, তবে পাবি হরি ব্রহ্ম,
তবে যদি তেযতে পার, ঐ ধর্ম্ম বলে।।

……………………………….
লোক শিক্ষা
রাগিনী কেলেংড়া

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!