বাউল গান সাধু ফকির বয়াতী

দিয়া মাটি পরিপাটি

দিয়া মাটি পরিপাটি, আগুন, জল আর হাওয়ার ভরে
গাড়ী চলছে আজব কলে।।
আবার হাওয়ার কল বন্ধ হবে,
ইঞ্জিন কল ছুইট্টা যাবে,
চড়নদার চইল্যা যাবে,
তখন চারজনায় কান্দে কইরা
নিয়ে যাবে গোরস্থলে।
গাড়ী চলছে আজব কলে।।

ইঞ্জিলের ভিতর
চলছে কি আজব লহর,
তারেতে আনে খবর,
কি চমৎকার নীলে।
ষোলজন দিচ্ছে পাহারা সেই ঘরেতে মিলে,
মহারাণী কুণ্ডলিনী বিরাজ করে চতুর্দলে।
গাড়ী চলছে আজব কলে।।

শিয়ালদহের ইষ্টিশনে
আছে কল মহাজনের,
চালায় কল রাত্রিদিনে,
আট কোঠারা, নয় দরজা, সদাই হওয়া খেলে,
বারামখানায় জ্বলছে বাত্তি, আলো হইল রঙমহলে।
গাড়ী চলছে আজব কলে।।

গাড়ীর খবর জানতে হ’লে,
রাখ মুরশীদের চরণ দেলে,
আফসার ফকির কাইন্দা বলে,
গাড়ী চলছে আজব কলে।।

……………………
অধ্যাপক উপেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্যের ‘বাংলার বাউল ও বাউল গান’ গ্রন্থ থেকে এই পদটি সংগৃহিত। ১৩৬৪ বঙ্গাব্দে প্রথম প্রকাশিত এই গ্রন্থের বানান অপরিবর্তিত রাখা হয়েছে। লেখকের এই অস্বাধারণ সংগ্রহের জন্য তার প্রতি ভবঘুরেকথা.কম-এর অশেষ কৃতজ্ঞতা।

এই পদটি সংগ্রহ সম্পর্কে অধ্যাপক উপেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য মহাশয় লিখেছেন- ময়মনসিংহ জেলার নেত্রকোণা মহমুকুমা হইতে জনৈক ছাত্র কতকগুলি গান সংগ্রহ করিয়া দিয়াছিল। তাহার মধ্যে নিম্নলিখিত গান তিনটি গ্রহণ করা হইল।

…………………….
আপনার গুরুবাড়ির সাধুসঙ্গ, আখড়া, আশ্রম, দরবার শরীফ, অসাম্প্রদায়িক ওরশের তথ্য প্রদান করে এই দিনপঞ্জিকে আরো সমৃদ্ধ করুন-
voboghurekotha@gmail.com

……………………………….
ভাববাদ-আধ্যাত্মবাদ-সাধুগুরু নিয়ে লিখুন ভবঘুরেকথা.কম-এ
লেখা পাঠিয়ে দিন- voboghurekotha@gmail.com
……………………………….

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

error: Content is protected !!