ইমাম গাজ্জালী

ইমাম গাজ্জালীর বাণী: এক

১.
সাফল্যের অপর নামই অধ্যবসায়।

২.
ক্রোধ মনুষ্যত্বের আলোকশিখা নির্বাপিত করে দেয়।

৩.
একটি জলবিন্দুর সুখ নদীর পানিতে মিশে হারিয়ে যাওয়ায়।

৪.
তিনটি বস্তু মানুষকে ধ্বংস করে দেয়। লোভ, হিংসা ও অহংকার।

৫.
শক্ত কথায় রেশমের মতো নরম অন্তরও পাথরের মতো শক্ত হয়ে যায়।

৬.
জ্ঞানের সাথে বুদ্ধিমত্তার সংযোগ না ঘটলে কাউকে প্রকৃত জ্ঞানী বলা যায় না।

৭.
চরিত্রহীন নারী বিষাক্ত সাপের ন্যায়, ধরতে গেলে নরম, কিন্তু এর ছোবল মারাত্মক।

৮.
জ্ঞানের অম্বেষী এবং সম্পদের লোভী এই দুই ধরনের লোক কখনও তৃপ্ত হতে পারে না।

৯.
যদি কোন জ্ঞানীকে অন্য জ্ঞানীদের নামে কটু কথা বলতে দেখো তাহলে তাকে এড়িয়ে চলো।

১০.
মানবজীবনের সবচেয়ে বড় কৃতিত্ব হচ্ছে তার ‘মন এবং জবানকে’ নিয়ন্ত্রণে রাখয় সমর্থ হওয়া।

১১.
মানুষের প্রশংসায় আনন্দিত হতে এবং মানুষের নিন্দায় দুঃখিত হতে আপনার অন্তরকে প্রশ্রয় দিবেন না।

১২.
দুনিয়াতে সবচেয়ে বোকা ও নির্বোধ সে, যে নিজকে পবিত্র দাবী করে এবং নিজেই নিজের প্রশংসা করে।

১৩.
যে ব্যক্তি অন্যের খারাপ চরিত্র নিয়ে অভিযোগ করলো, সে নিজের চরিত্রের খারাপ দিকটি প্রকাশ করে দিলো।

১৪.
আপনি যা ভালোবাসেন তা অর্জন করতে হলে আপনাকে অবশ্যই আপনার অপছন্দের বিষয়টিতে ধৈর্যধারণ করতে হবে।

১৫.
যে ব্যক্তি ভালো কাজের আদেশ দেয় এবং খারাপ কাজ থেকে নিষেধ করে তার ধৈর্য, সহানুভূতি, জ্ঞান ও প্রজ্ঞা থাকতে হবে।

১৬.
স্রষ্টার প্রত্যেকটি ফয়সালাই ন্যায়বিচারের ওপর ভিত্তিশীল। সুতরাং কোন অবস্থাতেই অভিযোগের ভাষা মুখে উচ্চারিত না হওয়া।

ইমাম গাজ্জালীর বাণী: দুই>>

……………….
আরও পড়ুন-
ইমাম গাজ্জালীর বাণী: এক
ইমাম গাজ্জালীর বাণী: দুই

…………………….

আপনার গুরুবাড়ির সাধুসঙ্গ, আখড়া, আশ্রম, দরবার শরীফ, অসাম্প্রদায়িক ওরশের তথ্য প্রদান করে এই দিনপঞ্জিকে আরো সমৃদ্ধ করুন- voboghurekotha@gmail.com

……………………………….
ভাববাদ-আধ্যাত্মবাদ-সাধুগুরু নিয়ে লিখুন ভবঘুরেকথা.কম-এ
লেখা পাঠিয়ে দিন- voboghurekotha@gmail.com
……………………………….

প্রাসঙ্গিক লেখা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

error: Content is protected !!